মঙ্গলবার, ২৬ জানুয়ারী ২০২১, ১১:২৪ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
আখাউড়ায় দেবগ্রাম দারুল উলুম মাদ্রাসার ৩৫তম বার্ষিক তাফসিরুল কোরআন মাহফিল অনুষ্টিত। ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় পৃথক সড়ক দূর্ঘটনায়  নিহত ২ হুইপ স্বপনের মহানুভবতায় অসুস্থ শাহিন বেঁচে থাকার স্বপ্ন দেখছে সাংবাদিক মাসুদ সরকারের পিতার মৃত্যুতে আক্কেলপুর উপজেলা প্রেসক্লাব এর শোক প্রকাশ পটুয়াখালীতে ডিবি অফিস সংলগ্ন অটোরিকশা পথরোধ করে সন্ত্রাসী হামলা চিরিরবন্দর  উপজেলা পরিষদ ভাইস চেয়ারম্যানের সম্মাননা ক্রেস্ট অর্জন চান্দিনায় রোটারী ক্লাব অব কুমিল্লা এলিগেন্স এর উদ্যোগে শীতার্তদের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণ আখাউড়া পৌর বি,এন,পির আহব্বায়ক কমিটির পরিচিতি সভা রাণীশংকৈলে ধানের চারা রোপন মেশিনে ৫০ একর জমিতে ধানের চারা রোপণ কার্যক্রম উদ্বোধন আশ্রয়ন প্রকল্প ও অন্ধপল্লীর পাশে দাড়াল স্বপ্নতরী সংগঠন

গোসলের দৃশ্যধারন করে  প্রবাসীর স্ত্রীকে ধর্ষন

প্রতিবেদকের নাম :
  • আপডেটের সময় : বুধবার, ১৩ জানুয়ারী, ২০২১
  • ৪৬ সময় দর্শন

মাদারীপুর প্রতিনিধিঃ

মাদারীপুর সদর উপজেলার ছিলারচর ইউনিয়নের রঘুরামপুর গ্রামের এক প্রবাসীর স্ত্রীর গোসলের দৃশ্যধারন করে ব্লাকমেইলিং ও ধর্ষন করার অভিযোগ উঠেছে দীন ইসলাম নামের এক যুবকের । এই ঘটনায় মাদারীপুর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন বিশেষ আদালতে  একটি মামলা হলেও পুলিশ অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করেনি বলেও অভিযোগ করেছেন ভুক্তভোগী নারী। স্থানীয় ও মামলার তথ্য অনুযায়ী  জানা গেলো, মাদারীপুর সদর উপজেলার রঘুরামপুর গ্রামের এক গৃহবধুর গোসলের দৃশ্যধারণ করে মো.দীন ইসলাম রাঢ়ী (৩৬) নামে এক যুবক। সেই দৃশ্য স্বামীর কাছে ও ফেসবুকে প্রকাশের ভয় দেখিয়ে গত বছরের ১৩ নভেম্বর ওই নারীর ইচ্ছার বিরুদ্ধে ধর্ষণ করে। এরপর ওই নারীকে বিভিন্ন সময় একাধিকবার শারীরিক সম্পর্কে বাধ্য করে মো. দীন ইসলাম। একপর্যায় ওই নারী আত্মহত্যারও চেষ্টা করে। পরে এই ঘটনায় গত বছর ১৭ নভেম্বর মাদারীপুর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন বিশেষ আদালতে মামলা দায়ের করে ভুক্তভোগী ঐ নারী। আদালত মামলাটি তদন্তপূর্বক আইনগত ব্যবস্থা গ্রহনের নির্দেশ দেয়।
ভুক্তভোগী নারী বলেন, গোসলের ছবি ও ভিডিও দেখিয়ে আমাকে ব্লাকমেইল করে একাধিক বার ধর্ষণ করেছে। সেই ভিডিও আমার স্বামীর কাছে পাঠিয়ে আমার সুখের সংসার ধ্বংস করে দিয়েছে দীন ইসলাম।   একারনে আমি আত্মহত্যার চেষ্টাও করেছিলাম। আমার চার বছরের সন্তানের মুখের দিকে তাকিয়ে বেঁচে আছি। ভুক্তভোগী নারী মা কান্না জড়িত কন্ঠে বলেন, আমরা গরীব মানুষ তাই পুলিশও আসামী গ্রেপ্তার করেনি। ওর জন্য আমার মেয়ে সংসার ভেঙ্গেছে। আমরা চাই দীন ইসলামের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি হোক।
এব্যপারে মামলার তদন্ত কর্মকর্মকর্তা ইন্সপেক্টর নাসির উদ্দিন বলেন, ‘মামলাটি তদন্তাধীন রয়েছে তাই তদন্তাধীন বিষয় বিস্তারিত কিছু বলতে চাই না। তবে শিঘ্রই আদালতে চার্জসীট দাখিল করা হবে।

দেশের কণ্ঠ ২৪.কম

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর
২০২০© এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ণ বেআইনি এবং শাস্তিযোগ্য অপরাধ*
সহযোগিতায় রায়তা-হোস্ট ডিজাইন : SmartiTHost
desharkontho-lite