সোমবার, ১৯ এপ্রিল ২০২১, ০৪:০৬ পূর্বাহ্ন

সরিষাবাড়ীতে জোরপূর্বক গাছকাটার অপচেষ্টা থানায় মামলা 

প্রতিবেদকের নাম :
  • আপডেটের সময় : বৃহস্পতিবার, ৭ জানুয়ারী, ২০২১
  • ১৪৯ সময় দর্শন

সরিষাবাড়ী প্রতিনিধিঃ

জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে সন্ত্রাসী কায়দায় কিছু অসাধু ব্যক্তি গ্রামাঞ্চলের নিরিহ মানুষের গাছপালা জোরপূর্বক কাটা ও ভূমি বেদখলের অপচেষ্টায় সর্বাত্মক নিম্নোদ্ধৃত বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

জানা গেছে, সরিষাবাড়ী উপজেলার ৮নং মহাদান ইউনিয়নের খাগুরিয়া গ্রামের মোঃ জালাল উদ্দিনের ছেলে মোস্তফা আল মাহমুদ (সোহেল) এর বসতবাড়ীর সম্মুখে অনাবাদী ২৮ শতাংশ জমি বেদখল ও গাছ কাটাকে কেন্দ্র করে মারামারি ঘটনা ঘটে।

উক্ত এ ঘটনায়, সোহেল এর দায়েরকৃত মামলা সূত্রে জানা যায়, গত (২৫ ডিসেম্বর)/২০২০ ইং সকাল আনুমানিক সাড়ে ১০টার দিকে অত্র এলাকার সন্ত্রাসী ও খারাপ প্রকৃতির লোক বলে খ্যাত মোঃ তাঁরা মিয়া(৪০), আব্দুল্লাহ টেপু(৪৫), ওয়ারেজ আলী(২৫), খলিলুর রহমান (৪২), শামীম মিয়া(৩২), রনি মিয়া(২২), হালিম মিয়া(৫০), পলাশ মিয়া(২৬) ও আসাদুল্লাহ (২৫), সহ পূর্ব পরিকল্পিত ভাবে দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে সোহেল এর ভোগদখলীয় জমিতে অনাধিকার পূর্বক প্রবেশ করে এবং ১৫/২০ বছর বয়সী কয়েকটি মেহগনি গাছ কেটে ফেলে।

এমতাবস্থায় সোহেল ও তাঁর পরিবারের লোকজন বাঁধা দিলে সন্ত্রাসীরা উত্তোজিত ও ক্ষিপ্ত হয়ে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে এবং মারতে আসে।

কোন প্রকার অনুনয় তাঁরা না শুনে সোহেলকে মারপিট করে বলে জানান মামলার প্রত্যক্ষ সাক্ষীরা।

মামলা সূত্রে আরও জানা যায়, সরিষাবাড়ী থানাধীন খাগুরিয়া সাকিনস্থ বাদীর নিম্ন তফসীল ভূমি গত ০৭/০৩/১৯৮৩ ইং সালে জালাল উদ্দিনের সাথে বিনিময় পত্র(রেওয়াজ) বদল করেন রেজিস্টারি দলিল মূল্যে। যার আরওআর-১১ ও হাল বিপি খতিয়ান নং- ২৫, সাবেক দাগ নং- ৩১২, হাল দাগ – ৭৯৯, জমির পরিমাণ ২৮ শতাংশ এবং শ্রেণী নামা বলে জানান জমির বর্তমান ভোগদখলকারী সোহেল মিয়া।

তিনি আরও জানান, ইতিপূর্বে উক্ত বিষয়টি নিয়ে অত্র এলাকার মুরুব্বীগণ একাধিকবার শালিস মীমাংসা করে দিয়েছেন।

দেশের কণ্ঠ ২৪.কম

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর
২০২০© এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ণ বেআইনি এবং শাস্তিযোগ্য অপরাধ*
সহযোগিতায় রায়তা-হোস্ট ডিজাইন : SmartiTHost
desharkontho-lite